কোথায় করবেন বিয়ের শপিং

কোথায় করবেন বিয়ের শপিং

কোথায় করবেন বিয়ের শপিং?

বাংলাদেশী বিয়ে মানেই শপিং-এর বিশাল সমারোহ। বিয়ের শপিং করার সময় অনেক কিছুই মাথায় রাখতে হয়। শপিং-এর পুরো লিস্ট পূরন হচ্ছে কি’না, কোন কিছু বাদ পড়ে গেল কি’না, সবকিছু মনমত ম্যাচিং হলো কি’না, বাজেটের মধ্যে শপিং শেষ করা গেল কি’না ইত্যাদি সহ আরো অনেক ধরনের প্রশ্ন জাগতে পারে বিয়ের শপিং নিয়ে। তবে কোত্থেকে বিয়ের শপিং করা উচিত, অথবা কোথায় শপিং-এর সব উপকরণ পাওয়া যাবে সেটাও গুরুত্বপূর্ণ। ঢাকার ভেতরে বিয়ের শপিং-এর জন্য বেশ কিছু অপশন রয়েছে, সেগুলো নিয়েই আজকের পোস্ট।

১। যমুনা ফিউচার পার্ক


যমুনা ফিউচার পার্ক
যমুনা ফিউচার পার্ক

২০১৩ সালে যাত্রা শুরু করা যমুনা ফিউচার পার্ক শুধুমাত্র ঢাকা শহরই নয়, বরঞ্চ পুরো এশিয়ার মধ্যেই অন্যতম বড় শপিং সেন্টার। পুরো ভবনের আয়তন ১৫০,০০০ স্কয়ার মিটার। এত বিশাল জায়গা নিয়ে হওয়া শপিং সেন্টারে স্বাভাবিকভাবেই থাকবে অনেক পণ্যের সমারোহ। যমুনা ফিউচার পার্কও তার ব্যতিক্রম নয়। দেশ-বিদেশের অনেক নামকরা ব্র্যান্ডের দোকান পাবেন এখানে। বিয়ের জন্য দরকারী যাবতীয় যত পণ্য আছে সবই মিলবে যমুনা ফিউচার পার্কে। পোশাক, গহনা, প্রসাধনী, গিফট সব ধরনের পণ্যের জন্যই প্রচুর দোকান আছে। দেখেশুনেও পণ্য কিনতে পারবেন নিজের বাজেটের সাথে সঙ্গতি রেখে।

২। বসুন্ধরা সিটি শপিং মল


বসুন্ধরা সিটি শপিং মল
বসুন্ধরা সিটি শপিং মল

পান্থপথে অবস্থিত বসুন্ধরা শপিং মল অনেক দিন ধরেই ধরেই দক্ষিণ এশিয়ার শপিং মল গুলোর মধ্যে শীর্ষস্থান ধরে রেখেছিল, যমুনা ফিউচার পার্কের আবির্ভাবের পর তা দ্বিতীয় স্থানে চলে যায়। বর্তমানে বিশ্বের সবথেকে বড় শপিং মলগুলোর মধ্যে বসুন্ধরা সিটি শপিং মলের অবস্থান ১৩তম। বসুন্ধরা সিটির পুরো ৮ তলা জুড়েই বিভিন্ন ধরনের পণ্যের দোকান আছে। এর মধ্যে প্রথম চার তলাতেই রয়েছে বিভিন্ন ব্র্যান্ডের পোশাকের দোকান। পাঁচ তলা এবং সাত তলা পুরোটা জুড়েই আছে গহনা আর জুতার দোকান। অর্থাৎ, বলতে গেলে বিয়ের জন্য দরকারী এমন কোন পণ্য নেই যা বসুন্ধরা সিটিতে পাওয়া যাবে না।বসুন্ধরা সিটির প্রায় সব দোকানই ফিক্সড প্রাইসে নিজেদের পণ্য বিক্রি করে, তবে প্রায় সময়ই বিভিন্ন ডিসকাউন্ট অফার পাওয়া যায়। কাজেই বাজেটের মধ্যে বিয়ের শপিং শেষ করার জন্যও বসুন্ধরা সিটি বেশ আদর্শ জায়গা।

৩। মিরপুর বেনারসী পল্লী


মিরপুর বেনারসী পল্লী
মিরপুর বেনারসী পল্লী

বিয়ের কনের সবথেকে বিখ্যাত পোশাক হচ্ছে শাড়ি। প্রায় প্রতিটি বাঙ্গালি মেয়েরই ইচ্ছা থাকে সুন্দর একটি শাড়ি পড়ে নিজেকে সাজিয়ে বিয়ের পিঁড়িতে বসার। আর এই বিয়ের শাড়ির জন্য নিঃসন্দেহে সবথেকে সেরা জায়গা হচ্ছে মিরপুর বেনারসি পল্লী। ১৯৯৫ সাল থেকে যাত্রা শুরু করা মিরপুর বেনারসী পল্লী অবস্থিত মিরপুর-১০ একদম মাঝামাঝি জায়গায়। নামে ‘বেনারসি পল্লী’ হলে সব ধরনের শাড়িই কিন্তু পাওয়া যায় এখানে। বরঞ্চ দেশের বিভিন্ন জায়গা থেকে আসা জামদানি, জর্জেট, সিল্ক ও কাতান সহ সব ধরনের শাড়ির বিশাল কালেকশন আছে বেনারসি পল্লীর দোকানগুলোয়। বিভিন্ন দোকান ঘুরে দরদাম করে নিজের পছন্দমত শাড়ি সস্তায় কেনার জন্য মিরপুর বেনারসি পল্লীই সবথেকে সেরা জায়গা।

৪। নিউ মার্কেট


নিউ মার্কেট
নিউ মার্কেট

সায়েন্স ল্যাবের বিপরীতে, মিরপুর রোডে অবস্থিত নিউ মার্কেট সবার কাছেই অতিপরিচিত। ঢাকা শহরের সবথেকে পুরনো কেনাকাটার স্থানগুলোর মধ্যে নিউ মার্কেট অন্যতম। নিউ মার্কেট এরিয়ার বিভিন্ন দোকান থেকে বিয়ের সব ধরনের পণ্যই কিনতে পারবেন, সবথেকে কম দামে। বলা হয়ে থাকে যে বড় বড় শপিং মলের হাজার টাকা দামের পণ্য কয়েকশো টাকাতেই নিউ মার্কেট থেকে কেনা সম্ভব। সস্তায় যারা বিয়ের শপিং সেরে ফেলতে চান, তাদের জন্য নিউ মার্কেট একদমই আদর্শ স্থান।

৫। বিয়ে-বাজার অনলাইন শপ


বিয়ে বাজার
বিয়ে বাজার

বর্তমানে অনলাইন ই-কমার্স শপগুলোর খ্যাতি অনেক বৃদ্ধি পেয়েছে। পণ্য কেনার জন্য মার্কেটে গিয়ে ঘোরাঘুরির ঝামেলা না থাকায় ই-কমার্স শপগুলো থেকেই শপিং করতে সাচ্ছ্বন্দ বোধ করেন অনেকে। বিয়ে বাজার বাংলাদেশের সর্বপ্রথম বিয়ের ই-কমার্স শপ। কোন কষ্ট ছাড়া বিয়ের যাবতীয় সকল পণ্য এক জায়গায় পেতে চাইলে বিয়ে-বাজার ওয়েব সাইট হওয়া সর্বপ্রথম পছন্দ। পোশাক, জুতো, জুয়েলারী, প্রসাধনীই শুধু নয়, বিয়ের যাবতীয় সকল সার্ভিসও বিয়ে-বাজারে পাওয়া যায়। ডেকোরেশন, কেটারিং, গাড়ি ভাড়া, ফটোগ্রাফি, বিউটি-পার্লার ইত্যাদি সহ সব সার্ভিসই পাবেন বিয়ে-বাজার ওয়েব সাইটে। ভিজিট করুন : https://biyebazaar.com


Wedding Dress Shopping For Bride & Groom

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Categories

%d bloggers like this: